কিং সলোমন এর বশকৃত ৭২ ডেমনের উপর সিরিজের আর চতুর্থ পর্ব। আজকের ডেমন “সামিজিনা”

৭২ ডেমনের লিস্টের ৪ নাম্বার ডেমন হল “সামিজিনা”। একে “গ্যামিগিম” বা “গ্যামিগিন” ও বলা হয়। তার বর্ণনা অনেক স্পেল ও ম্যাজিকের বইয়ে পাওয়া যায়।  সে “লেসার কী অফ সলোমন” বইয়ের চতুর্থ ডেমন এছাড়া “সামিজিনা” “সিউডেমোনার্কিয়া ডেমোনাম” বইয়ের ছেচল্লিশ নাম্বার ডেমন।
“সামিজিনা” একটি সিলভার সিলযুক্ত ডেমন । সে একজন মার্কুইস অর্থাৎ উচ্চ বংশীয় । “সামিজিনা” ডেমন হওয়ার আগে এঞ্জেল ছিল। সে একজন ফলেন এঞ্জেল। হেল এর উত্তর দিকের একজন শাসক সে। হেল এর ৩০ লিজিয়ন ডেমন সে শাসন করে।

বলা হয় “সামিজিনা” এপ্রিল মাসের ২০-৩০ তারিখ পর্যন্ত সবথেকে শক্তিশালী থাকে। তাকে ডাকার সবথেকে উপযুক্ত দিন হল “সোমবার” রাতে যখন আকাশে চাঁদ থাকে । তাকে ডাকতে পূর্ণিমা রাতের খুব একটা প্রয়োজন নেই তবে পূর্ণিমা রাতে তার দেখা দেওয়ার সম্ভাবনা কয়েক গুণ বেড়ে যায়। তাকে ডাকতে রক্তবর্ণ কাগজে তার সিল আঁকতে হয় এছাড়া তাকে ডাকতে আর যা যা প্রয়োজন তা হল রুপা, ৯ টা রত্ন, চাঁদের উপস্থিতি, সোমবার, সাদা অথবা রক্তবর্ণ মোমবাতি, যে ডাকবে তার চুল এবং রক্ত, আঠা এবং বিভিন্ন রকমের তেল।

“সামিজিনা” খুব সাহায্যকারী ডেমন হিসেবে পরিচিত। একবার ডাকলে সে খুব সময় নিয়ে সামনকারীর সাথে থাকে যেন তার কোনো তাড়া নেই। সে প্রথমে ছোট ঘোড়া বা গাধার রূপ নিয়ে আসে পরে সামনকারী অনুরোধ করলে মানুষের রূপ নেয়। সে খুব কর্কশ গলায় কথা বলে।

সামিজিনার অনেক গুলো ক্ষমতা আছে। “সামিজিনা” পাপী আত্মাদের হিসাব রাখে। এছাড়া যারা ডুবে মারা যায় তাদের আত্মাদের খবর সে রাখে। সে এসব আত্মাদের হাজির করতে পারে। এছাড়া সে “পারগাটরি” (যেখানে স্বর্গে যাওয়ার আগে আত্মাদের শুদ্ধ করা হয়) তে থাকা আত্মাদের ও হাজির করতে পারে। তার যেকোনো প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার ক্ষমতা আছে। “সামিজিনা” মানুষকে জ্ঞান দান করতে পারে এবং ক্রিয়েটিভ করতে পারে। এসম কারণেই তাকে ডাকা হয়।
প্রথম ছবি সামিজিনার সিল ও ২য় টা তার কাল্পনিক ছবি।



Share To:

Michael

Post A Comment:

0 comments so far,add yours